শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:২৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

চকরিয়া বিদ্যুৎ অফিসের উপ সহকারী সাদিউজ্জামানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২৩ ডিসেম্বর, ২০২০, ৭.২০ পিএম
  • ২১৭ বার পঠিত

চকরিয়া বিদ্যুৎ অফিসের উপ সহকারী সাদিউজ্জামানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

 

মনসুর মহসিন দৈনিক এটিএম নিউজ , চকরিয়া(কক্সবাজার)প্রতিনিধিঃ

 

বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড চকরিয়া এর উপ সহকর্মী প্রকৌশলী ডি এম সাদিউজ্জামান সহ আরও কয়েকজনের নাম উল্লেখ করে চট্টগ্রাম দক্ষিনাঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী বরাবর অভিযোগ দায়ের করেন ২২ নভেম্বর।

চকরিয়া উপজেলার সুরাজপুর মানিকপুর ১ নম্বর ওয়ার্ড মানিকনগর এলাকায় কয়েক যুগ ধরে বিদ্যুৎ বিহীন দিন কাটাচ্ছে শতাধিক পরিবার । এবিষয়ে বিদ্যুতের ২২টি খুঁটির জন্য ১৯,০৮, ২০২০ ইং সুরাজপুর মানিকপুর ইউপি চেয়ারম্যান আজিমুল হক আজিম চকরিয়া আবাসিক প্রকৌশলীর কাছে বিদ্যুৎতায়নের জন্য আবেদন করেন। এবং পরে চট্টগ্রাম বিউবো তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী পওস সার্কেল ও কক্সবাজার বিউবো নির্বাহী প্রকৌশলী বিতরণ বিভাগ বরাবরেও লিখিত আবেদন করেন। এর পরেও কোন সুফল মিলছেনা প্রান্তিক মানুষগুলোর।

আমরা টাকা দিতে পারছিনা বলে, আমাদের এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ নাদিয়ে, অন্য এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ দিচ্ছেন, বিউবো চকরিয়া উপসহকারী প্রকৌশলী

ডি এম সাদিউজ্জামান, এমন অভিযোগ এলাকাবাসীর। সরেজমিনে জানাযায়, ব্রিক ফিল্ড ও মোবাইল টাওয়ার কোম্পানি কে ১১ কেবি লাইনের সংযোগ দেওয়া হচ্ছে। অথচ মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে কাজটি করেছেন বলে, স্থানীয় এলাকাবাসীর‌‌ অভিযোগ । যাদের দেওয়া দরকার তাঁদের দেওয়া হচ্ছেনা বিদ্যুৎ সংযোগ, এনিয়ে এলাকাবাসী ক্ষোভ প্রকাশ করছেন।

 

অপর দিকে চকরিয়া বিদ্যুত অফিসের উপ সহকারী প্রকৌশলী

ডি এম সাদিউজ্জামানের

বিরুদ্ধে বিভিন্ন অনিয়ম ও দূর্নীতির অভিযোগে প্রধান প্রকৌশলী বিতরণ চট্টগ্রাম দক্ষিনাঞ্চল (বিউবো) বরাবর একটি অভিযোগ দেন চকরিয়ার স্থানীয় বাসিন্দারা। অভিযোগের বিষয়টি প্রধান প্রকৌশলী বিতরণ চট্টগ্রাম দক্ষিনাঞ্চলে যোগাগ করে নিশ্চিত হওয়া যায়। এবিষয়ে সাদিউজ্জামানের সাথে যোগাযোগ করা হলে, ওনি বক্তব্য দিতে রাজি হননি। চকরিয়া বিদ্যুৎ অফিসের আবাসিক প্রকৌশলী গীতি বসু চাকমা এর অফিসে গিয়ে প্রায় দুই ঘন্টা অপেক্ষা করিলেও এই প্রতিবেদকের সাথে সাক্ষাত দেননি।

বিদ্যুৎ অফিসের অনিয়মের বিষয়ে চকরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী বলেন, বিদ্যুৎ অফিসের অসাধু কর্মকর্তাদের কারনে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষনা অনুযায়ী ঘরে ঘরে বিদ্যুতায়ন বাধাগ্রস্থ হচ্ছে। দুর্ণীতিবাজদের চিহ্নিত করে, দ্রুত শাস্তির আওতায় আনবার জন্যে যথাযত কতৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

তাছাড়া পুরাতন যে খুঁটি গুলো আছে সেগুলো দীর্ঘদিন সংস্কার ও মেরামত না করায় প্রতিনিয়ত পতিত হচ্ছে দূর্ঘটনা। বৈদ্যুতিক খুটি / খাম্বার পরিবর্তে গাছের সাথে কোন রকম তার গুলো জুলে আছে। এলাকাবাসীর আবেদন দ্রুত পুরাতন লাইন সংস্কার ও বিদ্যুৎ না পাওয়া পরিবারগুলো কে বিদ্যুৎতের আওতায় আনার দাবী জানিয়েছেন ভুক্তভুগীরা।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

doeltv38GRD5838
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By ATM News