বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৪:৪৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শহীদ শেখ ফজলুল হক মণি আন্তঃউপজেলা ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট ২০২২ খুলনা বিভাগে করোনায় ৯ জনের মৃত্যু : শনাক্ত ১২৪ জন। কক্সবাজার সমুদ্র বুকে প্রথম রানওয়ে: দেশে প্রথম টেকনাফের চাঞ্চল্যকর ইসমত আরা হত্যাকান্ডের মামলা এখন হিমাগারে দীর্ঘ ৮০ বছর পর চন্দনাইশ মকবুলিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অভিভাবক নির্বাচন সম্পন্ন হয়, নিখোঁজ_সংবাদ….। টেকনাফে ২লাখ ৫০হাজার পিস ইয়াবাসহ ট্রলার জব্দ ধুনট উপজেলা আওয়ামীলীগের সংবাদ সম্মেলনে খন্দকার মোস্তাক অনুসারীদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়ার দাবী ধুনটে গ্রেনেড হামলা দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত কক্সবাজারে ‘ওসির ভাব নিয়ে’ মামলা তদন্ত করেন এসআইয়ের স্বামী!

খুলনায় চারটি বেসরকারি হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়া হবে

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৫ জুলাই, ২০২০, ৫.৫২ পিএম
  • ২৬৬ বার পঠিত

খুলনায় বড় চারটি বেসরকারি হাসপাতালে কোভিড-১৯ রোগীর চিকিৎসা দেয়া হবে। আর খুলনা সদর হাসপাতালের চতুর্থ তলায় ৪২টি শয্যা খুব দ্রুত প্রস্তুত করে কোভিড-১৯ রোগীর চিকিৎসা উপযোগী করে তোলা হবে। খুলনায় করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে গঠিত জেলা কমিটির রোববার এক জরুরি সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনের সভাপতিত্বে ডিসির সম্মেলনকক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

নগরীর যে চারটি প্রাইভেট হাসপাতালে করোনার চিকিৎসা দেয়া হবে সেগুলো হলো গাজী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল, আদ-দ্বীন হাসপাতাল, ইসলামী ব্যাংক হাসপাতাল ও খুলনা সিটি মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল। এসব হাসপাতালের কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা করে হাসপাতালের একটি অংশে ৫০টি করে শয্যায় আগামী তিন দিনের মধ্যে করোনা চিৎসাসেবা চালু করা হবে।

উল্লেখ্য, খুলনায় করোনার সংক্রমণ ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পাওয়ায় বর্তমান করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতাল অপ্রতুল হয়ে পড়েছে। হাসপাতালে বেড না পেয়ে অনেক রোগীই অত্যন্ত মানবেতর পরিস্থিতির মোকাবেলা করছে।

এছাড়া সভায় খুলনা মেডিক্যাল কলেজের পিসিআর ল্যাবে করোনা শনাক্ত পরীক্ষার ফলাফল দ্রুত এসএমএসের মাধ্যমে জানানো, সিটি করপোরেশনের খালিশপুরের লাল হাসপাতাল এবং তালতলা হাসপাতালে কোভিড-১৯ চিকিৎসা দেয়া যায় কি না তার সম্ভাব্যতা যাচাই, বর্তমান কোভিড হাসপাতালে দ্রুত হাইফ্লো ন্যাজাল ক্যানোলা স্থাপন এবং করোনাভাইরাস শনাক্তে আরো একটি পিসিআর ল্যাব স্থাপনের উদ্যোগ নেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

সভায় খুলনার মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক বলেন, কোভিড-১৯ চিকিৎসায় সরকারি হাসপাতালে ধারণ ক্ষমতা সীমিত। বেসরকারি হাসপাতাগুলো মানবিকতার নিদর্শন রাখতে নিশ্চয় এগিয়ে আসবে। সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী বেসরকারি হাসপাতালের একটি অংশে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসাসেবা দেয়া হবে।

সভায় জানান হয়, উপযুক্ত জায়গা পেলে খুলনার রোটারি ক্লাব করোনা চিকিৎসায় জন্য ১০০টি শয্যার যাবতীয় চিকিৎসা সরঞ্জামাদি দিতে প্রস্তুত আছে।

সভা শেষে উদ্ভুত করোনাভাইরাস সংক্রমণের পরিস্থিতিতে ঘরে ঘরে প্রয়োজনীয় ওষুধ সামগ্রী পৌঁছে দিতে অনলাইনভিত্তিক অ্যাপ অনলাইন মেডিসিন মার্টের উদ্বোধন করেন মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।

খুলনা বিভাগীয় কমিশনার ড. মু: আনোয়ার হোসেন হাওলাদার সভায় অনলাইনে যুক্ত ছিলেন এবং উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার সরদার রকিবুল ইসালম, পুলিশ সুপার এসএম শফিউল্লাহ, খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডা. মুন্সী মো: রেজা সেকেন্দার, খুলনা মেডিক্যাল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডা. মেহেদী নেওয়াজ, খুলনার সিভিল সার্জন ডা. সুজাত আহমেদ, খুলনা আঞ্চলিক তথ্য অফিসের উপপ্রধান তথ্য অফিসার ম. জাভেদ ইকবাল, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: আসাদুজ্জামান খান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জিয়াউর রহমান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো: ইউসুপ আলী, খুলনা প্রেসক্লাবের সভাপতি এসএম নজরুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক মামুন রেজা।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

doeltv38GRD5838
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By ATM News