সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৩৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

আগামীকাল অধ্যক্ষ আলহাজ্ব মৌলানা আবুল বশরসহ অবসর প্রাপ্ত সকল শিক্ষকদের বিদায় সংবর্ধনা ও মরণোত্তর সম্মাননা দেওয়া হচ্ছে;

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১, ৫.০৭ পিএম
  • ১৫০ বার পঠিত

আগামীকাল অধ্যক্ষ আলহাজ্ব মৌলানা আবুল বশরসহ অবসর প্রাপ্ত সকল শিক্ষকদের বিদায় সংবর্ধনা ও মরণোত্তর সম্মাননা দেওয়া হচ্ছে;

 

সাইফুল মোস্তফা,দৈনিক এটিএম নিউজ।

কক্সবাজার জেলাধীন চকরিয়া উপজেলার প্রত্নজনপথ,এশিয়াখ্যাত সমবায় অঞ্চল বদরখালী। বৃটিশ শাসনামলের স্বাধীনচেতা কিছু দক্ষ সংগঠকরা ১৯২৯ সালে এ প্যারাবনকে আবাদকরে গঠন করা হয় বদরখালী সমবায় কৃষি ও উপনিবেশ সমিতি। নতুন আবাদি গ্রামকে শিক্ষাসহ বাসযোগ্য করে গড়ে তোলার জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠার প্রয়োজনীয়তা অনুভব করেন তৎকালীন শিক্ষানুরাগী ধর্মপরায়ণ বিজ্ঞজনেরা। তৎমধ্যে মৌলানা মরহুম সৈয়দ আহমদের নিরলস প্রচেষ্টায় ১৯৫৪ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় বদরখালী মজহারুস সুন্নাহ ইবতেদায়ী মাদ্রাসা। কালের বিবর্তনে প্রয়োজনের নিমিত্বে ক্রমান্বয়ে দাখিল,আলিম ও বর্তমানে ফাজিল ডিগ্রি মাদ্রাসায় উন্নিত হয়েছে। মাদ্রাসার ৬৭ বছর বয়সে উক্ত মাদ্রাসায় অগনিত ছাত্র-ছাত্রী পড়ালেখা করে আলোকিত হয়েছে ও মেধার স্বাক্ষর রেখেছে। শিক্ষতা করে অবসর গ্রহণ করেছে সেটার হিসাব অগনিত নয়। মাদ্রাসা প্রতিষ্ঠার পর থেকে অদ্যবদী কোন অবসর প্রাপ্ত শিক্ষককে অনুষ্ঠানিক বিদায় দেওয়ার ইতিহাস মনে হয় নেই। আমাদের জীবদ্দশায় আমাদের অনেক শিক্ষক অবসরে যাচ্ছেন কিন্ত আনুষ্ঠানিক বিদায় হচ্ছেনা দেখে আমরা প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ গঠনে প্রয়োজনীয়তা অনুভব করলাম।২০১৭ সালে প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ গঠনের উদ্দেশ্যে একটি ক্ষুদে বার্তার মাধ্যমে মিটিং আহবান করে তৎকালীন তুর্কি তরুণ প্রাক্তন ছাত্ররা, সংখ্যায় ছিলাম ১২/১৩ জন। বর্তমান অধ্যক্ষ মহোদয়ের প্রেরণা ও প্রাক্তন ছাত্রদের ব্যাপক আগ্রহের ফলশ্রুতিতে বর্তমানে “প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ “একটি সংগঠিত সংগঠন।আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ হাজার ছাত্রদের হৃদয়ের স্পন্দন অত্র মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আলহাজ্ব মৌলানা মোহাম্মদ আবুল বশর হুজুর অবসরে যাচ্ছেন। অতীতের বিদায় অনুষ্ঠান না হওয়ার দায় তৎকালীনদের।আমরা যারা বর্তমানে প্রাক্তন ছাত্ররা বেচে আছি দায়ীত্ব মনে করেছি প্রাণপ্রিয় অবসর প্রাপ্ত শিক্ষকদের বিদায় সংবর্ধনা জানিয়ে সম্মান পদর্শনের জন্য। তাই প্রতিষ্ঠাতা মরহুম মৌলানা সৈয়দ আহমদ হতে বর্তমান অধ্যক্ষ আলহাজ্ব মৌলানা আবুল বশর হুজুর পর্যন্ত যতজন শিক্ষক অবসর গ্রহণ করেছেন,মৃত্যু বরণ করেছেন সকলকে আগামী ২৭ ফেব্রুয়ারি শনিবার বিদায় সংবর্ধনা ও মরণোত্তর সম্মাননা প্রাদানের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে প্রাক্তন ছাত্র পরিষদের পক্ষ থেকে।

বিদায় সংবর্ধনা বাস্তবায়ন কমিটি ও বড় ভাই আব্বস উদ্দীন সহ যারা এ সাহসী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে এবং বাস্তবায়ন করার জন্য নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছে তা একদিন কালের ফসিল হয়ে থাকবে।”গুনি জনকে সম্মান করলে গুনিজন জন্মায়”

 

তাই সকল প্রাক্তন ছাত্রদের সহযোগিতা ও যথাসময়ে উপস্থিতি কামনা করেছেন প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ কর্তৃপক্ষ।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

doeltv38GRD5838
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By ATM News